ksrm

ভ্রমণকোথায় কোথায় বেড়াবেন ২০১৯ এ?

সময় সংবাদ

fb tw
somoy
ভ্রমণ করতে ভালোবাসেন অনেকেই। ভ্রমণের মতো খুব কম জিনিসই মানুষকে প্রকৃত জীবনের শিক্ষা দিতে পারে। নিজের বৃত্তের বাইরে যাওয়া যেমন আনন্দময়, তেমনি রোমাঞ্চকর। সম্প্রতি বিখ্যাত ভ্রমণ বিষয়ক পত্রিকা ‘লোনলি প্ল্যানেট’-এর নতুন তালিকায় স্থান পেয়েছে ১০টি দেশ। বিশ্বের অন্যতম শ্রেষ্ঠ পর্যটন গন্তব্যগুলোর এই তালিকার শীর্ষে রয়েছে এশিয়ার শ্রীলঙ্কা। তার পরের স্থানেই জায়গা করে নিয়েছে জার্মানি।
আসুন জেনে নেই ভ্রমণে জন্য সেরা ১০ দেশ সম্পর্কে:
১. শ্রীলঙ্কা: লোনলি প্ল্যানেটের তালিকার শীর্ষে রয়েছে শ্রীলঙ্কা। গ্রীষ্মপ্রধান এ দেশটিতে অসাধারণ প্রাকৃতিক সৌন্দর্যের সাথে রয়েছে বৌদ্ধ বা হিন্দুদের বিভিন্ন মন্দির। এ ছাড়া সারা বছর এখানে চলতে থাকে নানা রকমের উৎসব, যা দেখতে ভিড় করেন পৃথিবীর সব প্রান্তের পর্যটকেরা।
২. জার্মানি: ইউরোপের অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ এ দেশটি পর্যটনের জন্য এমনিতেই বিশ্বখ্যাত। তালিকায় দ্বিতীয় স্থান কেড়ে নেওয়া জার্মানিতে আছে অসংখ্য ঐতিহাসিক স্থান ও নানা ধরনের জাদুঘর। শুধু তাই নয়, এ দেশের ‘অক্টোবর ফেস্ট’-এর মতো উৎসবও টেনে নেয় বিশ্বের সব প্রান্তের ভ্রমণবিলাসীদের।
৩. জিম্বাবুয়ে: তালিকায় আফ্রিকার একমাত্র দেশ জিম্বাবুয়ে। তৃতীয় স্থানাধিকারী এ দেশটি আফ্রিকার সবচেয়ে নিরাপদ গন্তব্যগুলোর মধ্যে একটি। বন্যপ্রাণী সংরক্ষণের জন্য উদ্যান, প্রত্নতাত্ত্বিক ধ্বংসাবশেষ ও ভিক্টোরিয়া ঝর্ণা- সব মিলিয়ে জিম্বাবুয়ে বেড়াতে যাওয়ার জন্য খুবই আকর্ষণীয়।
৪. পানামা: জীববৈচিত্র্যে ভরা মধ্য আমেরিকার এ ছোট্ট দেশে রয়েছে অসাধারণ গ্রীষ্মমন্ডলীয় বনভূমি, সাদা বালির অপূর্ব সৈকত ও তার সাথে মানানসই আদিবাসী সংস্কৃতি। সে কারণেই এ তালিকায় চতুর্থ স্থানে রয়েছে পানামা।
৫. কিরগিজস্তান: ২০১৮ সালে ‘আদিবাসী অলিম্পিক’ হিসাবে খ্যাত ওয়ার্ল্ড নোম্যাড গেমস অনুষ্ঠিত হবার পর থেকেই বিশ্ব পর্যটনের কেন্দ্রে আসতে শুরু করে মধ্য এশিয়ার এ দেশটি। এছাড়া কিরগিজস্তানের ভিসা সংক্রান্ত প্রক্রিয়া অত্যন্ত সহজ ও দ্রুত হওয়ার কারণে এরমধ্যেই পর্যটকদের পছন্দের গন্তব্য হয়ে উঠেছে।
৬. জর্ডান: বহুল পরিচিত ডেড সি, রিফ্ট ভ্যালি, বর্তমানে জর্ডানের সবচেয়ে জনপ্রিয় খাবার ‘জর্ডান ট্রেইল’ দেশটিকে তালিকার ছয় নম্বরে তুলে এনেছে।
৭. ইন্দোনেশিয়া: ইন্দোনেশিয়া একটি বৈচিত্র্যময় দেশ। প্রায় ৫ হাজার দ্বীপের সমন্বয়ে গঠিত দেশটি সমুদ্র সৈকত, কমোডো ড্রাগন, বিচিত্র সংস্কৃতি, ধর্ম, রান্না এবং প্রাকৃতিক সৌন্দর্য সব সময়ই ভ্রমণ পিপাসু মানুষকে আকর্ষণ করেছে।
৮. বেলারুস: পূর্ব ইউরোপের স্থলবেষ্টিত রাষ্ট্র বেলারুস। দেশের মধ্যভাগে রয়েছে বেলারুশ পর্বতশ্রেণী। দেশটির প্রায় এক-তৃতীয়াংশ এলাকা জনবিরল অরণ্যে আবৃত। প্রায় ৩ হাজার নদী ও প্রায় ৪ হাজার হ্রদ দেশটির ভূগোলের অন্যতম বৈশিষ্ট্য।
৯. সাও টম এন্ড প্রেন্সিপে: এটি একটি আফ্রিকান দ্বীপ রাষ্ট্র। এখানে রয়েছে আগ্নেয়গিরি, বিশাল সৈকত, মনভোলানো প্রাকৃতিক দৃশ্য। এ দ্বীপের রয়েছে দাস ব্যবসার কালো অতীতের গল্প।
১০. বেলিজ: এটি উত্তর-পূর্ব মধ্য আমেরিকার একটি দেশ, ক্যারিবিয়ান সাগরের উপকূলে অবস্থিত এ দেশটির রয়েছে বিশ্বের দ্বিতীয় বৃহত্তম প্রবাল প্রাচীর। দেশটিতে রয়েছে গোলক ধাঁধার মতো অসংখ্য গুহা।
কোথাও ভ্রমণে যাবার আগে সেখানে কবে গেলে ভাল হয়, কত দিনের ভ্রমণের প্ল্যান বানাবেন, কোথায় কোথায় যাবেন, ‘মাস্ট সি’এর তালিকায় কি কি থাকবে, কি কি খাবেন, কেনাকাটা কোথায় করবেন- এসব বিষয় সম্পর্কে ধারণা করে নেয়া জরুরি। এসব বিষয়ে প্রাথমিক খোঁজখবর আপনি ইন্টারনেটেই পেতে পারেন। তাহলে আর দেরি কেন? পকেট যদি সায় দেয়, বেরিয়ে পড়ুন ২০১৯ সালের ‘বেস্ট ইন ট্রাভেল’ প্লেসগুলো এক্সপ্লোর করতে!!

আরও সংবাদ

বাংলার সময়
বাণিজ্য সময়
বিনোদনের সময়
খেলার সময়
আন্তর্জাতিক সময়
মহানগর সময়
অন্যান্য সময়
তথ্য প্রযুক্তির সময়
রাশিফল
লাইফস্টাইল
ভ্রমণ
প্রবাসে সময়
সাক্ষাৎকার
মুক্তকথা
বাণিজ্য মেলা
রসুই ঘর
বিশ্বকাপ গ্যালারি
বইমেলা
উত্তাল মার্চ
সিটি নির্বাচন
শেয়ার বাজার
জাতীয় বাজেট
বিপিএল
শিক্ষা সময়
ভোটের হাওয়া
স্বাস্থ্য
ধর্ম
চাকরি
পশ্চিমবঙ্গ
ফুটবল বিশ্বকাপ
ভাইরাল
সংবাদ প্রতিনিধি
বিশ্বকাপ সংবাদ
Latest News
আপনিও লিখুন
ছবি ভিডিও টিভি
মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন
GoTop