ভ্রমণদ্বীপটি শুধু মেয়েদের জন্যই

সময় সংবাদ

fb tw
somoy
মেয়েদের একা ঘোরার ক্ষেত্রে এখন বাধা কাটছে। যাবতীয় ভয় কাটিয়ে এখন একাই ঘুরতে যাচ্ছেন মেয়েরা। পারিবারিক বাধা, সামাজিক দায়বদ্ধতা ক্রমশ কাটিয়ে উঠছেন তারা। কমবয়সি হোন বা বয়স্ক, বিবাহিতা হোন বা অবিবাহিতা, ভ্রমণপিপাসু অনেক মেয়েই এখন চান ঘুরতে গেলে শুধু নারীদের গ্রুপে যেতে, নয়তো একা যেতে।
এমন নারীদের নিরাপত্তার কথা মাথায় রেখেই শুধু নারীদের বিলাসী অবসর যাপনের জন্য ফিনল্যান্ড উপকুলে রয়েছে একটি দ্বীপ। ফিনল্যান্ড সাগরে অবস্থিত এই দ্বীপের নাম ‘Super she island’। কোনও পুরুষের প্রবেশাধিকার নেই এখানে।
ক্রিস্টিনা রথ নামের এক মার্কিনী নারীর তৈরি এই পর্যটন প্রকল্প শুধু নারীদের অবসর যাপনের জন্য। ক্রিস্টিনা তার ব্যক্তিগত অভিজ্ঞতা থেকে দেখেন ভ্রমণে বেড়িয়ে নিজেকে ভুলে পুরুষ সঙ্গীর প্রতি মনোযোগ ব্যয় করেন অধিকাংশ নারী। এর পরেই মাথায় আসে কেবলমাত্র নারীদের জন্য পর্যটন রিসোর্ট তৈরির অভিনব আইডিয়া।
ক্রিস্টিনার অবশ্য প্রথমে চিন্তা ছিল অবকাশকেন্দ্রটি নিজের দেশ মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে করবেন। সেই অনুযায়ী একটি পরিকল্পনাও করেছিলেন। কিন্তু এরই মাঝে ক্রিস্টিনার সঙ্গে এক ফিনিশিয় যুবকের দেখা হয়, তারপর দুজনের কথায়-কথায় তা হৃদয় দেয়া-নেওয়ার পর্যায়ে যায়। প্রেমিকের সঙ্গে তার দেশ দেখতে গিয়ে ফিনল্যান্ডের প্রেমে পড়ে যান ক্রিস্টিনা। কালবিলম্ব না করে সিদ্ধান্ত পাল্টে ফেলেন তিনি, যুক্তরাষ্ট্রে নয়, স্বপ্নের রিসোর্টটি তিনি বানাবেন ফিনল্যান্ডেই।
দেরি না করে আট দশমিক চার একরের ‘সুপার-সি’ দ্বীপকে বিশালবহুল অবসরকেন্দ্রে রূপ দিতে কাজ শুরু করে দেন ক্রিস্টিনা। 
তাহলে ক্রিস্টিনার ‘শুধু নারীদের জন্য’ এই অভিনব দ্বীপ বানানোর ক্ষেত্রে কোনো ‘পুরুষ-বিদ্বেষ’ মনোভাব কী কাজ করেছে? ক্রিস্টিনা বলছেন, না। পুরো ভাবনার পেছনে পুরুষদের প্রতি কোনো বিদ্বেষ কাজ করেনি। বরং ক্রিস্টিনা রথ জানিয়ে রেখেছেন, ভবিষ্যতে নারীদের অতিথি হয়ে পুরুষরাও হয়তো এই দ্বীপে আসবেন। কিন্তু দ্বীপে প্রাধান্য পাবেন নারীরাই।
ক্রিস্টিনা বলেন, তিনি ছেলে-মেয়ে সবার সঙ্গেই ছুটি কাটাতে ভালবাসেন। তবে তিনি মনে করেন, শুধু নারীদের জন্য একটি ভ্রমণের ঠিকানা থাকা জরুরি, যেখানে সংসার ও অফিসের যাবতীয় টেনশন থেকে মুক্ত হয়ে সতেজ হওয়া যাবে।
তাই যে সব নারী একা ঘুরতে ভালবাসেন, পকেট বুঝে ঘুরে আসুন ফিনল্যান্ড সাগরের উপরে গড়ে ওঠা এই দ্বীপটি থেকে। সুপার সি আইল্যান্ড রিসোর্টে থাকছে ১০টি গেস্ট কেবিন, একটি স্পা এবং বিবিধ অ্যাডভেঞ্চারের খোরাক। সেই সঙ্গে প্রতিদিন নানান ফিটনেস ও রান্নার কোর্স করার ব্যবস্থা থাকছে। এছাড়া রয়েছে ইয়োগা ও মেডিটেশনের ক্লাস।

আরও সংবাদ

বাংলার সময়
বাণিজ্য সময়
বিনোদনের সময়
খেলার সময়
আন্তর্জাতিক সময়
মহানগর সময়
অন্যান্য সময়
তথ্য প্রযুক্তির সময়
রাশিফল
লাইফস্টাইল
ভ্রমণ
প্রবাসে সময়
সাক্ষাৎকার
মুক্তকথা
বাণিজ্য মেলা
রসুই ঘর
বিশ্বকাপ গ্যালারি
বইমেলা
উত্তাল মার্চ
সিটি নির্বাচন
শেয়ার বাজার
জাতীয় বাজেট
বিপিএল
শিক্ষা সময়
ভোটের হাওয়া
স্বাস্থ্য
ধর্ম
চাকরি
পশ্চিমবঙ্গ
ফুটবল বিশ্বকাপ
সংবাদ প্রতিনিধি
বিশ্বকাপ সংবাদ
মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন
GoTop