বাংলার সময়তীব্র স্রোতে ফেরি বন্ধ কাঁঠালবাড়ি-শিমুলিয়ায়

সঞ্জয় কর্মকার অভিজিৎ

fb tw
somoy
স্বাধীনতার পর পরই চালু হয় মাদারীপুরের কাঁঠালবাড়ি-শিমুলিয়া নৌরুট। কিন্তু বছরের পর বছর চলে গেলেও গুরুত্বপূর্ণ এই নৌরুটের ফেরিগুলোতে লাগেনি আধুনিকতার ছোঁয়া। পদ্মার স্রোতের ধাক্কা সইতে না পেরে ৪দিন ধরে অলস সময় কাটছে ফেরিগুলোর। ঘাটের উভয়পাড়ে আটকা পড়েছে শত শত পণ্যবাহী ট্রাক। ক্ষতির মুখে পড়েছেন চালক ও মালিকরা। 
প্রায় ৪০ বছর আগে রাজধানী ঢাকার সাথে সড়কপথে যোগাযোগের জন্য চালু হয় মাদারীপুরের কাঁঠালবাড়ি-শিমুলিয়া নৌ-রুট। প্রতিদিন দক্ষিণাঞ্চলের ২১ জেলার ৩০ হাজার মানুষ এই নৌ-রুট দিয়ে যাতায়াত করেন। অথচ, গুরুত্বপূর্ণ এই নৌরুটে চলাচলকারী ফেরিগুলো আধুনিক নয়। পুরনো ১৪ থেকে ১৮টি ফেরি দিয়ে পারাপার করা হয় যাত্রী ও যানবাহন। এতে পদ্মার তীব্র স্রোত সামাল দিতে হিমশিম খেতে হয় ফেরি চালকদের। 
মঙ্গলবার (১৬ জুলাই) সন্ধ্যার পর নদীর স্রোত বেড়ে গেলে বিকল হয়ে যায় কয়েকটি ফেরি। এরপরই ২ থেকে ৫টি ফেরি দিয়ে যাত্রী ও যানবাহন পারাপার করা হচ্ছে। বাকি ফেরিগুলো নোঙর করে রাখা হয়েছে ঘাটে। এতে সবচে বিপাকে পড়েছে পণ্যবাহী চালকরা। ঘাট এলাকায় দিনের পর দিন আটকা থাকায় ট্রাকে পচে নষ্ট হচ্ছে কাঁচামাল।
পণ্যবাহী চালকরা বলেন, পারাপার বন্ধ, যাও পারাপার হয় ছোট গাড়ি। সাত আট দিন ধরে বসে আছি, আমাদের কষ্ট হচ্ছে মালামালও পচে যাচ্ছে। 
ঘাট কর্তৃপক্ষ ফেরি বিকলের ব্যাপারে কথা বলতে রাজি নন। তবে, স্রোতের পরিস্থিতি স্বাভাবিক না হওয়া পর্যন্ত পাটুরিয়া-দৌলতদিয়া নৌ-রুট ব্যবহারের পরামর্শ তাদের।
মাদারীপুর কাঁঠালবাড়ি ফেরিঘাটের সহকারী-ব্যবস্থাপক (বিআইডব্লিটিসি) মো. জসিম উদ্দিন বলেন, স্রোতের বিপরীতে ওভার স্পীডে চালানোর কারণে আমাদের ফেরিগুলো বিকল হয়ে যাচ্ছে। 
সাড়ে ৭ কিলোমিটারের এই নৌ-পথ পাড়ি দিতে স্বাভাবিক সময়ে এক ঘণ্টা লাগলেও স্রোতের কারণে এখন সময় লাগছে দুই থেকে তিনগুণ।

আরও সংবাদ

বাংলার সময়
বাণিজ্য সময়
বিনোদনের সময়
খেলার সময়
আন্তর্জাতিক সময়
মহানগর সময়
অন্যান্য সময়
তথ্য প্রযুক্তির সময়
রাশিফল
লাইফস্টাইল
ভ্রমণ
প্রবাসে সময়
সাক্ষাৎকার
মুক্তকথা
বাণিজ্য মেলা
রসুই ঘর
বিশ্বকাপ গ্যালারি
বইমেলা
উত্তাল মার্চ
সিটি নির্বাচন
শেয়ার বাজার
জাতীয় বাজেট
বিপিএল
শিক্ষা সময়
ভোটের হাওয়া
স্বাস্থ্য
ধর্ম
চাকরি
পশ্চিমবঙ্গ
ফুটবল বিশ্বকাপ
ভাইরাল
সংবাদ প্রতিনিধি
বিশ্বকাপ সংবাদ
Latest News
আপনিও লিখুন
ছবি ভিডিও টিভি
মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন
GoTop