ksrm

মুক্তকথামিন্নির রিমান্ড ও নানা প্রশ্ন

সময় সংবাদ

fb tw
somoy
মিন্নির পক্ষ বা বিপক্ষের বিষয় না, বিষয়টা অপরাধের মাত্রা অনুযায়ী মিন্নি আর বন্ড গ্রুপ একই  ট্রিটমেন্ট পাওয়ার যোগ্য কিনা। একটা বিষয় বুঝ‌তে হ‌বে। সেটা হ‌চ্ছে, মিন্নি হয়‌তো রিফাত হত্যা মামল‌ায় স‌ন্দেহভাজন কিন্তু বন্ড গ্রুপ একদল কুখ্যাত দুষ্কৃতকারী। মিন্নির রিমান্ড আর রিফাত-‌রিশান-ফরাজীর রিমান্ড সমান গুরুত্ব গুরুত্ব বহন ক‌রে না। রিফাত হত্যাকা‌ণ্ডে কোন প‌রোক্ষ ইন্ধন আছে কিনা মিন্নির ক্ষেত্রে কেবল সেটাই তদন্তের বিষয়।
 অপরপক্ষে, বন্ড গ্রুপ এই নৃশংস হত্যাকা‌ণ্ডে প্রত্যক্ষ অংশগ্রহনকারী এবং সেইস‌ঙ্গে তারা এক‌টি প্রকাশ্য সন্ত্রাসী গ্রুপ ও মাদক চোরাকারবারী। তারা প্রত্যক্ষ হত্যাকারী, জনম‌নে ভীতি সৃষ্টিকারী এবং মাদক ব্যবসায়ী। য‌দিও জন সমা‌লোচনার প্রেক্ষিতে রিফাত হত্যাকা‌ন্ডের তদন্তের জন্য বন্ড গ্রুপ‌কে এবং মিন্নিকে গ্রেফতার করা হ‌য়ে‌ছে, কিন্তু অপরাধীর চরিত্র এবং অপরাধীর পেছনের ইতিহাস ‌বিচা‌রে মিন্নির কি বন্ড গ্রু‌পের একই কাতা‌রের অপরাধী? মিন্নি স‌ন্দেহভাজন আর বন্ডরা প্রকাশ্য নির্মম খু‌নের প্রত্যক্ষ অভিযুক্ত।
 বন্ডরা প্রকাশ্য দিবা‌লো‌কে নির্মমভাবে একজন মানুষ‌কে কুপিয়ে হত্যা ক‌রে‌ছে এটা সক‌লে বিভিন্নভাবে লাইভ দেখেছে তাই এই হত্যায় তা‌দের সংশ্লষ্টিটার ব্যাপা‌রে কা‌রো ম‌নে কোন সন্দেহ নাই, মানুষ এখন জান‌তে চায় তা‌দের নৃশংস সন্ত্রাসী হ‌য়ে ওঠার পেছ‌নের কুশীলব কারা আর তা‌দের অপরাধের নেটওয়ার্ক কতদূর বিস্তৃত। মিন্নিকে তা‌দের সমান অপরাধী বা‌নি‌য়ে সমান গুরুত্ব ‌দি‌য়ে তা‌দের অপরাধের বিস্তৃতিকে এক‌ কে‌ন্দ্রে স্থির করার প্রচেষ্টা ভে‌বে অনে‌কেই হতাশা প্রকাশ কর‌ছেন। মিন্নি একজন নারী এবং সে কোন সরকারী রাজ‌নৈ‌তিক বা প্রভাবশালী প‌রিবা‌রের মে‌য়েও নয়।
 অপরা‌ধের সা‌থে তার কোন নেপথ্য সং‌শ্লিষ্টতার আলামত বের করা প্রশাসনের জন্য মো‌টেই ক‌ঠিন কোন ব্যাপার নয়। ক‌ঠিন ব্যাপার হ‌লো বন্ডগ্রু‌পের ‌বেপ‌রোয়া বন্ড হ‌য়ে ওঠার শ‌ক্তি‌কে খুঁজে বের করা। স্বাভা‌বিক কা‌জে য‌দি অস্বাভা‌বিক পন্থা অবলম্বন করা হয় তাহ‌লেই জনম‌নে স‌ন্দে‌হের সৃ‌ষ্টি হয়। অপরা‌ধী পুরুষ হোক কি ম‌হিলা, ধনী হোক কি গরীব সেটা আইনের বি‌বেচ্য নয় এটা যেমন স‌ত্যি একইভা‌বে কোন অপরাধী‌কে সামা‌জিক অবস্থানের বিচা‌রে বি‌বেচনা করাটাও কাম্য নয়।
প্রকৃত সত্য উদঘাট‌নের স্বা‌র্থে পু‌লিশ যে কাউ‌কে জিজ্ঞাসা কর‌তে পা‌রে এটা জে‌নেও মিন্নিকে ৫ দি‌নের রিমান্ড‌‌ে নেয়াটা মানুষ মে‌নে নি‌তে কেন পারেছে না। কেন সবার ম‌নে হ‌চ্ছে যে মিন্নি‌কে সাম‌নে আনার প্রচেস্টা ম‌ধ্যে মুল আসামি‌দের সা‌র্বিক কর্মকাণ্ডকে আলোচনার বাইরে রাখার চেষ্টা হ‌চ্ছে। কেন মিন্নি‌কে থানায় জিজ্ঞাসাবাদ না ক‌রে প্রধান প্রত্যক্ষ আসামিদের ম‌তো রিমা‌ন্ডে নি‌য়ে ‌জিজ্ঞাসাবা‌দের মহাজজ্ঞ প্রয়োজন হ‌লো।
কেনই বা মিন্নির বাবা‌কে তার মে‌য়ে‌কে নির্যাতন ক‌রে সংশ্লিষ্টটা স্বীকার করার অভি‌যোগ কর‌তে হ‌লো। জনম‌নে কেন তদন্ত সং‌শ্লিষ্ট‌দের‌কে নি‌য়ে স‌ন্দেহ সৃ‌ষ্টি হ‌য়ে‌ছে। নয়ন বন্ড‌ রিমা‌ন্ডে আসার আগেই চির‌বিদায় নিল আর মিন্নি প্রধান আলোচনায় এসে গে‌লো। মাঝখা‌নের হাজা‌রো জিজ্ঞাসা চাপা প‌ড়ে গে‌লো অদৃশ্য ইশারায়। কান টে‌নে কেন মাথা আনা হ‌চ্ছে না। কাদের প্রয়োজ‌নে তৈরী হ‌য়ে‌ছিল বন্ড, কি উদ্দে‌শ্যে তৈরী হ‌য়ে‌ছিল বন্ড, কি কি অপরাধ করা‌নো হ‌চ্ছিল বন্ড‌দের‌কে দি‌য়ে।
এগু‌লো বের কর‌তে যা‌দের‌কে রিমা‌ন্ডে আনা দরকার তারা য‌দি ধরা‌ছোঁয়ার বাই‌রে থা‌কে তাহ‌কে কি ক‌রে জানা যা‌বে নয়ন‌দের অবর্তমা‌নে কা‌দের‌কে বানা‌নো হ‌চ্ছে নতুন বন্ড। কা‌রিগর‌কে না থা‌মি‌য়ে বাজা‌রের ক‌য়েক‌টি পন্য সরা‌লে কি লাভ হ‌বে সমা‌জের? একজন সাধারণ মানুষ‌কে মারা আর একজন সাধারন মানুষ‌কে কৌশ‌লে বা লো‌ভে ফে‌লে অপরাধী বা‌নি‌য়ে মারার ম‌ধ্যে পার্থক্য কি আছে। অস্ত্র হিসা‌বে কা‌কে ব্যবহার করা হ‌চ্ছে তার চাই‌তে গুরুত্বপুর্ণ হ‌চ্ছে কে ব্যবহার কর‌ছে। সা‌পের লেজ কে‌টে ছোবল থে‌কে বাঁচা যা‌বে না, বাঁচ‌তে হ‌লে মাথা কাট‌তে হ‌বে। কিন্তু আমরা‌তো মাথা পর্যন্ত পৌঁছা‌তেই পার‌ছি না। আমা‌দের ছোবল খে‌য়েই যে‌তে হ‌চ্ছে।
আলোচনা-সমা‌লোচনায় সময় পার হয়ে যা‌বে, নতুন না‌মে নত‌ুন বন্ড তৈরি হ‌বে, নতুন আত‌ঙ্কে কাঁপ‌বে বরগুনা, নতুন হা‌তে ছড়া‌বে মাদক।  মর‌বে রিফাত, মর‌বে নয়নও। কেবল ঠিক থাক‌বে সম্রাট, ঠিক থাক‌বে সাম্রাজ্য ।।
‌সৈয়দ মইনুজ্জামান (লিটু)
‌লেখক ও রাজনী‌তি‌বিদ

আরও সংবাদ

বাংলার সময়
বাণিজ্য সময়
বিনোদনের সময়
খেলার সময়
আন্তর্জাতিক সময়
মহানগর সময়
অন্যান্য সময়
তথ্য প্রযুক্তির সময়
রাশিফল
লাইফস্টাইল
ভ্রমণ
প্রবাসে সময়
সাক্ষাৎকার
মুক্তকথা
বাণিজ্য মেলা
রসুই ঘর
বিশ্বকাপ গ্যালারি
বইমেলা
উত্তাল মার্চ
সিটি নির্বাচন
শেয়ার বাজার
জাতীয় বাজেট
বিপিএল
শিক্ষা সময়
ভোটের হাওয়া
স্বাস্থ্য
ধর্ম
চাকরি
পশ্চিমবঙ্গ
ফুটবল বিশ্বকাপ
ভাইরাল
সংবাদ প্রতিনিধি
বিশ্বকাপ সংবাদ
Latest News
আপনিও লিখুন
ছবি ভিডিও টিভি
মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন
GoTop