মহানগর সময়‘প্রিয়ার বক্তব্যের দায় নেবে না হিন্দু, বৌদ্ধ, খ্রিস্টান ঐক্য পরিষদ’

সময় সংবাদ

fb tw
somoy
দেশের সংখ্যালঘুদের দুর্দশার কথা বলতে প্রিয়া সাহা গিয়েছিলেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের দরবারে। সেখানে তিনি যে দু’তিনটি কথা বলেছেন তা নিয়ে দেশে তোলপাড় শুরু হয়েছে। আওয়ামী লীগের সমর্থকরা শনিবার (২০ জুলাই) তাঁর বাড়ির সামনে বিক্ষোভ দেখিয়েছেন।
আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বলেছেন, এটা সরকারকে বদনাম করার বৃহত্তর চক্রান্তের অংশ হতে পারে। তিনি স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী জানিয়েছেন, প্রিয়া দেশে ফিরলে তাঁর কাছে জানতে চাওয়া হবে, কী উদ্দেশে তিনি এই কাজ করেছেন। প্রিয়া সাহার বক্তব্যকে দেশদ্রোহী অ্যাখ্যা দিলে তিনি বলেন, তার বিরুদ্ধে কড়া ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে। এ নিয়ে ঢাকায় মার্কিন রাষ্ট্রদূত রবার্ট মিলার বলেন, ‘বাংলাদেশে ধর্মাচরণের স্বাধীনতা উদাহরণ হতে পারে।’
এমনকি ‘হিন্দু, বৌদ্ধ, খ্রিস্টান ঐক্য পরিষদ’- ও তাদের অন্যতম সাংগঠনিক সম্পাদক প্রিয়া সাহার বক্তব্যের দায় নিচ্ছে না। হিন্দু-বৌদ্ধ, খ্রিস্টান ঐক্য পরিষদের সাধারণ সম্পাদক রানা দাশগুপ্ত বলেন, ‘প্রিয়া আমাদের ১১ সাংগঠনিক সম্পাদকের একজন হলেও তাঁর বক্তব্য একান্তই নিজস্ব। সংগঠন তার বক্তব্যের স্বীকৃতি দিচ্ছে না।’
এই পরিস্থিতিতে দেশে ফিরে প্রিয়া বিপাকে পড়তে পারেন বলে অনেকে মনে করছেন।
১৬ জুলাই বিভিন্ন দেশের নির্যাতিত সংখ্যালঘুদের যে প্রতিনিধি দল হোয়াইট হাউসে গিয়ে ট্রাম্পের সঙ্গে কথা বলার সুযোগ পান, বাংলাদেশের প্রিয়াও তাতে ছিলেন। প্রথম সুযোগেই তিনি বাংলাদেশের সংখ্যালঘুদের ওপর নির্যাতন নিয়ে মার্কিন প্রেসিডেন্টের কাছে অভিযোগ করেন। ট্রাম্প জানতে চান, কারা এই নির্যাতন করে। প্রিয়া বলেন, এরা মুসলিম মৌলবাদী। কিন্তু তারা সব সময়েই রাজনৈতিক আশ্রয় পেয়ে যায়।

আরও সংবাদ

বাংলার সময়
বাণিজ্য সময়
বিনোদনের সময়
খেলার সময়
আন্তর্জাতিক সময়
মহানগর সময়
অন্যান্য সময়
তথ্য প্রযুক্তির সময়
রাশিফল
লাইফস্টাইল
ভ্রমণ
প্রবাসে সময়
সাক্ষাৎকার
মুক্তকথা
বাণিজ্য মেলা
রসুই ঘর
বিশ্বকাপ গ্যালারি
বইমেলা
উত্তাল মার্চ
সিটি নির্বাচন
শেয়ার বাজার
জাতীয় বাজেট
বিপিএল
শিক্ষা সময়
ভোটের হাওয়া
স্বাস্থ্য
ধর্ম
চাকরি
পশ্চিমবঙ্গ
ফুটবল বিশ্বকাপ
সংবাদ প্রতিনিধি
বিশ্বকাপ সংবাদ
মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন
GoTop