তথ্য প্রযুক্তির সময়বিজ্ঞানে কর্মদক্ষতা বাড়াতে ‘ইয়ুথ ফর সায়েন্স’ ক্যাম্পেইন

সময় সংবাদ

fb tw
somoy
বিজ্ঞানের সুফল এবং বৈজ্ঞানিক আবিষ্কার সম্পর্কে জনসচেতনতা তৈরির লক্ষ্যে তরুণদের সম্পৃক্ত করতে এবং কর্মদক্ষতা বাড়াতে শুরু হল ‘ইয়ুথ ফর সায়েন্স’ ক্যাম্পেইন।
শনিবার (২৭ জুলাই) রাজধানীর সিক্স সিজন হোটেলে এ ক্যাম্পেইনের উদ্বোধন করা হয়। আমেরিকার কর্নেল বিশ্ববিদ্যালয়ের কর্নেল অ্যালায়েন্স ফর সায়েন্স’র পৃষ্ঠপোষকতায় পরিচালিত ফার্মিং ফিউচার বাংলাদেশ (এফএফবি) এ কর্মসূচির আয়োজক।
উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে দেশের শীর্ষ স্থানীয় ১১টি সরকারি ও বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক ও শিক্ষার্থীরা অংশ নেন। এসময় কৃষিবিদ, বিজ্ঞানী, সরকারি কর্মকর্তা, কৃষিশিল্প সংশ্লিষ্টদের পাশাপাশি বিভিন্ন দাতা সংস্থার প্রতিনিধিরা উপস্থিত ছিলেন।
ক্যাম্পেইনে অংশগ্রহণকারী শিক্ষার্থীরা ফার্মিং ফিউচার বাংলাদেশ এবং সংশ্লিষ্ট বিশ্ববিদ্যালয়ের সহযোগিতায় বছরব্যাপী বিভিন্ন সচেতনতামুলক কার্যক্রম পরিচালনা করবে বলে জানিয়েছেন আয়োজকরা।
ইয়ুথ ফর সায়েন্স অংশগ্রহণকারী বিশ্ববিদ্যালয়গুলো হল- ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়, জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়, শেরেবাংলা কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়, নর্থসাউথ ইউনিভার্সিটি, লিবারেল আর্টস ইউনিভার্সিটি বাংলাদেশ, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়, ইস্টওয়েস্ট ইউনিভার্সিটি, ইন্ডিপেন্ডেন্ট ইউনিভার্সিটি, জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় এবং ব্র্যাক ইউনিভার্সিটি।
উদ্বোধন অনুষ্ঠানে বক্তারা বলেন, বাংলাদেশের জনসংখ্যার এক-তৃতীয়াংশ-ই তরুণ। বিপুল এই জনগোষ্ঠীকে মূলধারার বাইরে রেখে সার্বিক এবং টেকসই উন্নয়ন সম্ভব নয়। বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি উদ্ভাবনে তরুণদের স্বতঃস্ফূর্ত অংশগ্রহণতারই প্রমাণ। সঠিক তথ্য প্রচারের মাধ্যমে খাদ্য ও কৃষিসম্পর্কিত উদ্ভাবনসহ বিজ্ঞানসম্পর্কিত নানা বিষয়ে জ্ঞান বৃদ্ধিতে এবং সম্পৃক্ত করতে তরুণদের অংশগ্রহণ অপরিহার্য।
অনুষ্ঠানে ইরি’র ন্যাশনাল কনসালট্যান্ট জীবন কৃষ্ণ বিশ্বাস বলেন, ক্রমবর্ধমান উন্নয়নের যে প্রতিকূলতা আছে, তরুণরা তাদের একাগ্রহতা ও সৃজনশীলতা ব্যাবহার করে তা কাটিয়ে উঠতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করতে পারে। 
বস্তুনিষ্ঠ তথ্য-প্রবাহের ওপর জোররোপ করে কৃষি মন্ত্রণালয়ের এপিএ পোল সদস্য ও ফার্মিং ফিউচার বাংলাদেশ’র উপদেষ্টা হামিদুর রহমান বলেন, অপুষ্টিজনিত সমস্যা দূরীকরণ ও  ক্ষুধামুক্ত বাংলাদেশ গড়তে কৃষিতে তরুণদের অংশগ্রহণ অনস্বীকার্য। 
বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক ড. তফাজ্জল ইসলাম ইয়ুথ ফর সায়েন্স-এর সময়োপযোগীতার ওপর গুরুত্বারোপ করে বলেন, বাংলাদেশের গবেষণা ও উদ্ভাবনখাতের স্বয়ংসম্পূর্ণতা অর্জনের লক্ষ্যে তরুণ প্রজন্মের বিজ্ঞানীদের গুরুত্ব দেয়া এবং এই খাতে সরকারি-বেসরকারি পৃষ্ঠপোষকতা জরুরি।
ফার্মিং ফিউচার বাংলাদেশের সিইও এবং নির্বাহী পরিচালক আরিফ হোসেন বলেন, ইয়ুথ ফর সায়েন্স কার্যক্রমের সাথে তরুণদের সম্পৃক্ত করার মাধ্যমে তাদের দক্ষতা উন্নয়ন তথা ক্ষমতায়ন এবং কৃষিবিজ্ঞান ও কৃষিবিষয়ক উদ্ভাবনকে সর্বস্তরে পৌঁছে দিতে আমরা প্রতিশ্রুতিবদ্ধ।
আয়োজক সংশ্লিষ্টরা জানান, ইয়ুথ ফর সায়েন্স কার্যক্রমের মূল লক্ষ্যগুলোর মধ্যে উল্লেখযোগ্য হচ্ছে, তরুণদের নেতৃত্বেদানের দক্ষতা উন্নয়ন কার্যক্রম পরিচালনা করা এবং বিশ্ববিদ্যালয়ভিত্তিক বিজ্ঞান ক্লাব ও অন্যান্য প্রতিষ্ঠানের সাথে অংশীদারিত্বের ভিত্তিতে বিভিন্ন সচেতনতামূলক কার্যক্রম পরিচালনা করা।
ফার্মিং ফিউচার বাংলাদেশ (এফএফবি) এর মূল লক্ষ্য বাংলাদেশে খাদ্যশস্য উৎপাদনে জৈব প্রযুক্তিসহ আধুনিক কৃষিপ্রযুক্তি বিষয়ক সচেতনতা বাড়ানো। বিল ও মেলিন্ডাগেটস ফাউন্ডেশনএর অর্থায়নে যুক্তরাষ্ট্রের কর্নেল বিশ্ববিদ্যালয়ের ‘কর্নেল অ্যালায়েন্স ফর সাইন্স’ এর পৃষ্ঠপোষকতায় জনসচেতনতা বৃদ্ধিতে বিভিন্ন কার্যক্রম পরিচালনা করছে ফার্মিং ফিউচার বাংলাদেশ।

আরও সংবাদ

বাংলার সময়
বাণিজ্য সময়
বিনোদনের সময়
খেলার সময়
আন্তর্জাতিক সময়
মহানগর সময়
অন্যান্য সময়
তথ্য প্রযুক্তির সময়
রাশিফল
লাইফস্টাইল
ভ্রমণ
প্রবাসে সময়
সাক্ষাৎকার
মুক্তকথা
বাণিজ্য মেলা
রসুই ঘর
বিশ্বকাপ গ্যালারি
বইমেলা
উত্তাল মার্চ
সিটি নির্বাচন
শেয়ার বাজার
জাতীয় বাজেট
বিপিএল
শিক্ষা সময়
ভোটের হাওয়া
স্বাস্থ্য
ধর্ম
চাকরি
পশ্চিমবঙ্গ
ফুটবল বিশ্বকাপ
সংবাদ প্রতিনিধি
বিশ্বকাপ সংবাদ
মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন
GoTop