ksrm

মুক্তকথাডেঙ্গু এবং আমা‌দের পঙ্গু দায়িত্ববোধ: প্রয়োজন সম্মিলিত সামাজিক আন্দোলন

সৈয়দ মইনুজ্জামান (লিটু)

fb tw
somoy
ডেঙ্গু দমনে সরকার, মন্ত্রণালয় বা স্থানীয় প্রশাসন কি করছে বা তা‌দের করনীয় কাজ তারা কেন করেনি, কেন ভুল ঔষধ কিনেছে, কেন ওষুধে পানি মিশিয়ে ব্যবহার করা হ‌য়ে‌ছে, কেন যথাসময়ে পর্যাপ্ত ওষুধ ব্যবহার করা হয়নি, কেন প্রতি বছর এই সিজনে মশার উপদ্রব বেড়ে যায় জেনেও সিটি ক‌র্পো‌রেশন কোন আগাম ব্যবস্থা নেয়‌নি, কেন মেয়র মশা মারার ব্যবস্থা না নি‌য়ে ডেঙ্গু হবার প‌রে তার চিকিৎসা নি‌য়ে বেশী উৎসাহ দেখাচ্ছেন, কেন মশা না মে‌রে মশারী টানা‌নোর পরামর্শ দেয়ায় তা‌দের বেশী আগ্রহ, কেন কার্যকর ওষুধ না কিনে কোটি কোটি টাকার খরচ দেখা‌নো হ‌য়ে‌ছে, কেন প্রতিনিয়ত অপ্রয়োজনীয় ও অসংলগ্ন কথা বলে ঢাকার মেয়ররা মানুষ‌দের বিরক্তি উৎপাদন ক‌রে চলেছেন, কেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী ‌ দেশের এই ভয়াবহ স্বাস্থ্য পরিস্থিতিতে নিশ্চিন্ত মনে পরিবারসহ বিদেশ ভ্রমণে গিয়েছিলেন, কেন সিটি ক‌র্পো‌রেশন ও স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের ব্যর্থতা ঢাক‌তে জনসচেতনতাকে প্রধান সমস্যা হিসাবে প্রচার করার চেষ্টা চলছে, কেন বেসরকারি হাসপাতালগু‌লো মানুষের বিপদের সু‌যোগ নি‌চ্ছে, কেন সরকারী হাসপাতালে ডেঙ্গু পরীক্ষার সরঞ্জামের অপ্রতুলতা, কেন এতকিছুর প‌রেও সংশ্লিষ্ট সকল প্রতিষ্ঠানের সমন্বয়হীনতার কারণে ওষুধ আর প্রয়োজনীয় সরঞ্জাম দ্রুত জোগাড় করা যা‌চ্ছে না, কেনইবা এই ভয়াবহ পরিস্থিতিকে লুকবার চেষ্টা না ক‌রে বরং পরিস্থিতি মোকা‌বেলায় স‌র্ব্বোচ্চ গুরুত্ব দি‌য়ে ঝাঁপিয়ে পড়া হচ্ছে না... এসব নি‌য়ে আলোচনার এখন আর সময় নাই। আমরা মৃত্যু ঝুঁকি‌তে পড়েছি। ডেঙ্গু মহামারী রূপ নিচ্ছে, দ্রুত ছড়িয়ে পড়ছে শহর-বন্দর-গ্রামে। কোন নির্দিষ্ট এলাকায় দু-চারজন ঝার‌পোছ ক‌রে এই মহা সমস্যা সমাধান করার সময় এখন শেষ।
সারা দেশের শিশুরা সবচাইতে বেশী ঝুঁকি‌তে আছে। কোন বয়সের মানুষই নিরাপদ নয়, কোন স্থানই নিরাপদ নয়।  বাচ্চা‌কে স্কুলে না পাঠিয়ে বাসায় বসিয়ে রাখলে ডেঙ্গুর ঝুঁকি কমবে, ব্যাপারটা মো‌টেই এরকম নয়। ডেঙ্গু কোন ছোঁয়া‌চে রোগ নয়। ডেঙ্গু থে‌কে নিরাপদ থাকার প্রথম শর্ত হচ্ছে নিজ অবস্থান এবং এর আশপাশ প‌রিচ্ছন্ন রে‌খে এডিস মশার জন্ম নেয়া বা এডিস মশার জন্য অনুকূল পরিবেশ সৃষ্টি হ‌তে না দেয়া। অর্থাৎ, নিজ বাসা বা স্কুল বা কর্মস্থল যেখানেই আমরা যখন অবস্থান কর‌বো তখন সেই স্থান বা তার আশপাশের পরিবেশের পরিচ্ছন্নতা সম্পর্কে আমা‌দের‌কে নিশ্চিত হ‌তে হবে। স্কুল বা কর্মস্থল থেকেই সবাই ডেঙ্গু বহন ক‌রে আসছেন ব্যাপারটা মেটেই তেমন নয়, নিজ বাসায় বসেও অনেকে ডেঙ্গু আক্রান্ত হচ্ছেন। এখন এই পরিস্থিতিতে নিজেকে আর সন্তান‌দের‌কে ডেঙ্গু মুক্ত রাখ‌তে হলে আমা‌দের বাসাবাড়িতে যেন পরিচ্ছন্নতা নিশ্চিত কর‌তে হবে আবার আমা‌দের নিজেদেরই স্বার্থে আমা‌দের বাচ্চাদের শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান আর আমা‌দের কর্মস্থলের পরিবেশকে পরিচ্ছন্ন রাখ‌তেও আমা‌দের উদ্যোগী হ‌য়ে দায়িত্ব নি‌য়ে এডিস মুক্ত করার কাজে প্রত্যক্ষ অংশ নি‌তে হবে। এটি এখন আর ব্যক্তিগত বা পারিবারিক সচেতনতার বিষয় নয়, বরং এটি এখন এক‌টি অবশ্যম্ভাবী সামাজিক আন্দোলন। সচেতনতা সৃষ্টি এবং  প্রত্যেক‌কে সচেতনতায় বাধ্য করা দু‌টোই এই আন্দোল‌নের অমার্জনীয় অংশ। যারা নিজ দায়িত্ব পালন করছেন না তা‌দের সমা‌লোচনা বা তা‌দের প্রতি ক্ষোভ প্রকাশের সু‌যোগ আছে, কিন্তু তার জন্য রাগ বা অভিমান ক‌রে নিজেদের দায়িত্বে অবহেলা করার কোন সু‌যোগ নাই।
এই ভয়াবহ পরিস্থিতি সমাজবদ্ধভা‌বে মোকা‌বিলা করার কোন বিকল্প নাই । মনে রাখ‌তে হবে, এখন প্রতিবেশীর বাচ্চা নিরাপদ মানেই আমার বাচ্চা নিরাপদ। কারণ, মশারা উড়‌তে পা‌রে। আবার, কোন ডেঙ্গু রোগী‌কে সাধারণ মশা কামড়ালে এবং সেই মশা আমা‌দের‌কে কামড়ালেও ডেঙ্গু আক্রান্ত হবার সু‌যোগ আছে। সেই কারণে কেবল এডিস মশার বিস্তার রোধ কর‌লেই হবে না, সেইসাথে সামগ্রিক পরিচ্ছন্নতা নিশ্চিত ক‌রে সকল মশা থেকে নিরাপদ থাক‌তে হবে। একক সচেতনতা নয়, সম্মিলিত সচেতনতাই একমাত্র সমাধান। সমাজে বসবাসকারী প্রত্যেকের সাথে প্রত্যেকের সৌহাদ্য ও বিশ্বস্ততা সৃষ্টির মাধ্যমে সহ‌যোগিতামুলক সমাজ ব্যবস্থা নিশ্চিত করা না গে‌লে প্রত্যেকেই আমরা ক্ষ‌তিগ্রস্থ হ‌বো। অবিশ্বাস দুর ক‌রে সহাবস্থান নিশ্চিত কর‌তে হবে। নি‌জে বাঁচ‌তে হলে শুধু ঘর নয়, পুরো প্রতিবেশ নি‌য়ে কাজ কর‌তে হবে। একই মশা বা একই দুর্যোগ একাধিক প্রাণ সংহার করবে, তাই শুধু নিজের প্রাণ বা নিজের শিশুর প্রাণ নি‌য়ে স্বতন্ত্রভাবে ভাবার সু‌যোগ শেষ হ‌য়ে গে‌ছে। পু‌রো প্রতিবেশকে এক পরিবার না ভেবে আর কোনো উপায় নেই। আর তাই অস্থির ও ভারসাম্যহীন পৃথিবীর আগামীর সকল দুর্যোগ মোকা‌বেলায় এখন থেকেই প্রস্তুত থাক‌তে হবে সবাই‌কে। আর সেজন্য পথ একটাই খোলা আছে- পারস্প‌রিক সামাজিক আস্হাশীলতা আর অনিবার্য সামাজিক ঐক্যবদ্ধতা। প্লিজ...।।
সৈয়দ মইনুজ্জামান
লেখক ও রাজনী‌তি‌বিদ।

আরও সংবাদ

বাংলার সময়
বাণিজ্য সময়
বিনোদনের সময়
খেলার সময়
আন্তর্জাতিক সময়
মহানগর সময়
অন্যান্য সময়
তথ্য প্রযুক্তির সময়
রাশিফল
লাইফস্টাইল
ভ্রমণ
প্রবাসে সময়
সাক্ষাৎকার
মুক্তকথা
বাণিজ্য মেলা
রসুই ঘর
বিশ্বকাপ গ্যালারি
বইমেলা
উত্তাল মার্চ
সিটি নির্বাচন
শেয়ার বাজার
জাতীয় বাজেট
বিপিএল
শিক্ষা সময়
ভোটের হাওয়া
স্বাস্থ্য
ধর্ম
চাকরি
পশ্চিমবঙ্গ
ফুটবল বিশ্বকাপ
ভাইরাল
সংবাদ প্রতিনিধি
বিশ্বকাপ সংবাদ
Latest News
আপনিও লিখুন
ছবি ভিডিও টিভি
মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন
GoTop