রসুই ঘরচেখে দেখুন মজাদার ইলিশ ভাপা

সময় সংবাদ

fb tw
somoy
ইলিশের এখন ভরা মৌসুম। জেলেদের জালে ধরা পরছে ঝাঁকে ঝাঁকে ইলিশ। দেশের প্রায় সব মৎস্য অবতরণ কেন্দ্র ভরে গেছে ইলিশে। তাই আজ নিয়ে আসলাম ইলিশের মজার রেসিপি- ভাপা ইলিশ।
ভাপা ইলিশের নামটা শুনলেই যেন জিভে জল আসে। কেন আসবেনা বলুন? মাছে ভাতে বাঙ্গালীদের এটাই যে প্রিয় রেসিপি। গরম ভাতের পাশে ইলিশের যে কোন পদই বাঙ্গালীর শ্রেষ্ঠ খাবার। আজ সুস্বাদু এই রেসিপিটা দেয়া হলো। চলুন দেখে নেয়া যাক রেসিপিটা-
উপকরণ: ইলিশ মাছ আস্ত বা ৮ টুকরা করা। ফেটানো টক দই ১ কাপ। পেঁয়াজ বেরেস্তা আধা কাপ। লবণ স্বাদ মতো। হলুদগুঁড়া ১ চা-চামচ। সরিষা (হলুদ ও লাল) বাটা আধা কাপ ( দুটি কাঁচামরিচ মিশিয়ে বেটে নিন)। কাঁচামরিচ ৫টি। সরিষা ও সয়াবিন তেল ১/৪ কাপ করে। পোস্তদানা ১ টেবিল-চামচ।
পদ্ধতি: মাছ সাবধানে ধুয়ে নিন যাতে না ভাঙে। পছন্দ মতো ওভেন প্রুফ পাত্রে তেল ব্রাশ করে মাছ বিছিয়ে দিন। আস্ত না রাখতে চাইলে টুকরা করেও নিতে পারেন।
টক দই, বেরেস্তা, কাঁচামরিচ, পোস্তদানা ব্লেন্ড করে এর সঙ্গে তেল, সরিষা-বাটা, হলুদ-গুঁড়া, লবণ ও ১ কাপ পানি মিশিয়ে মাছের উপর ঢেলে দিন (মাছ যেহেতু উল্টানো যাবে না তাই মাছের সমান সমান যেন গ্রেইভি থাকে)।
মসলা মাছে ভালো করে মিশিয়ে নিন।
ঢাকনা বা ফয়েল দিয়ে ঢেকে ২০ মিনিট ২০০ সে. তাপমাত্রায় রান্না করুন। ২০ মিনিট পর ঢাকনা খুলে আরও ২০ মিনিট রান্না করুন।
চুলায় রান্না করতে চাইলে
বড় হাঁড়িতে এক ইঞ্চি উচ্চতায় পানি দিয়ে ফুটিয়ে নিন। এখন মাছের পাত্রটি ফুটন্ত পানির উপর এমনভাবে বসান যাতে পানি না ঢুকতে পারে। হাঁড়ি ঢাকনা দিয়ে ভালোভাবে আটকিয়ে দিন। এক ঘণ্টার মতো অল্প আঁচে রাখুন। চাইলে পরে প্রেশার কুকার বা রাইস কুকারেও করা যায়। সাদাভাত বা পোলাওয়ের সঙ্গে পরিবেশন করুন মজাদার ভাপা ইলিশ।

আরও সংবাদ

বাংলার সময়
বাণিজ্য সময়
বিনোদনের সময়
খেলার সময়
আন্তর্জাতিক সময়
মহানগর সময়
অন্যান্য সময়
তথ্য প্রযুক্তির সময়
রাশিফল
লাইফস্টাইল
ভ্রমণ
প্রবাসে সময়
সাক্ষাৎকার
মুক্তকথা
বাণিজ্য মেলা
রসুই ঘর
বিশ্বকাপ গ্যালারি
বইমেলা
উত্তাল মার্চ
সিটি নির্বাচন
শেয়ার বাজার
জাতীয় বাজেট
বিপিএল
শিক্ষা সময়
ভোটের হাওয়া
স্বাস্থ্য
ধর্ম
চাকরি
পশ্চিমবঙ্গ
ফুটবল বিশ্বকাপ
সংবাদ প্রতিনিধি
বিশ্বকাপ সংবাদ
মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন
GoTop