ksrm

খেলার সময়অনিয়মের জন্য বিসিবি সভাপতিকে দুষলেন স্থপতি মোবাশ্বের

সময় সংবাদ

fb tw
ক্রিকেটের বিভিন্ন অনিয়ম অভিযোগসহ ১১টি দাবি তুলে ধরেছেন বাংলাদেশ ক্রিকেট দলের খেলোয়াড়রা। সোমবার (২১ অক্টোবর) মিরপুরে শেরে-ই-বাংলা ন্যাশনাল স্টেডিয়ামে এক সংবাদ সম্মেলেন তারা এ দাবিগুলো তুলে ধরেন। আর ক্রিকেটারদের এই দাবিগুলোর যৌক্তিকতা নিয়ে সময় সংবাদের মুখোমুখি হন ক্রিকেট বোর্ডের সাবেক পরিচালক ও স্থপতি মোবাশ্বের হোসেন।
তিনি বলেন, ক্রিকেটারদের ১১ দফা হঠাৎ করে আসেনি। আমি চার-পাঁচ বছর ধরে বলে আসছি, যেকোন সময়ে ক্রিকেটারদের দুঃখ-কষ্ট আউটবাস্ট হতে পারে। সেটা হয়েছে। এই ১১ দফা একদিনে সৃষ্টি হয়নি।
ক্রিকেট বোর্ডের কর্মকাণ্ড নিয়ে তিনি আরো বলেন, বর্তমান বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিবি) সভাপতিকে ৯০ দিনের জন্য ক্রিকেট বোর্ড পাঠিয়ে ছিলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা, একটি সুস্থ ও সুন্দর নির্বাচন করার জন্য। তারপর তিনি ৯০ দিনের মধ্যে হিসেব করে দেখলেন, এর চেয়ে মজার জায়গা সার্থক জায়গা আর কোথায় নেই। উনি (পাপন) পাস করা পুরো কন্সটিটিউশন (সংবিধান) বাদ করে দিলেন। নিজের অবস্থানকে সুদৃঢ় করার জন্য ক্রিকেট বোর্ডে ঢুকলেন। আর সবচেয়ে আশ্চর্যের বিষয় হলো এখানে সবাই বিনা ভোটে নির্বাচিত হয়। অর্থাৎ নাম দিলে বিনা-প্রতিদ্বন্দ্বিতায় সবাই জয়ী হয়। সেই পরিস্থিতি কীভাবে হলো।
মোবাশ্বের হোসেন বলেন, অন্যদিকে পাপন সাহেব স্বীকারই করেছেন, লোকমান নামে এক ভদ্রলোক তার সবচেয়ে ভালো বন্ধু। যিনি কখনো মদ ও জুয়া খেলেন না। তাহলে একটি কথা আমরা বলতে পারি, তিনি মানুষকে মদ খাওয়ান, জুয়া খেলান। এই মানুষটি ক্রিকেট বোর্ডের সবচেয়ে শক্তিশালী অবস্থানে রয়েছে।
খেলোয়াড়দের পারিশ্রমিক বিষয়ে স্থপতি মোবাশ্বের বলেন, বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের যদি টাকা না থাকতো বোর্ডের পরিচালকরা টাকা অপচয় না করতেন, এবং নিজের টাকায় টিকিট কিনে খেলা দেখতেন, যেটা একসময়ে আমরা করেছি। সেই জিনিসটি দেখি না। ক্রিকেট পরিচালকরা যে অর্থ ব্যয় করেন, ট্যুর করার সময় প্রতিদিন যে অর্থ খরচ করেন সেগুলো যদি হিসাব করা যায়...। যাদের কারণে এই কাজগুলো করেন তাদেরকে কিন্তু সুস্থ ও সুন্দরভাবে বাঁচার অধিকার দেননি। এই জায়গা আসতে কেন এতো সময় লাগলো। কেননা মাননীয় প্রধানমন্ত্রী বলেছেন, সব জায়গা থেকে আগাছা দূর করতে চান তিনি।
তিনি আরো বলেন, বাংলাদেশে ক্রিকেটাররা অজস্র টাকা নিয়ে এসেছেন। তাদের কাজের মাধ্যমে খেলার মাধ্যমে সেই অর্থের অংশীদার তারা হতে পারেননি। আমার প্লেয়ার টাকা পায় না। আর ক্রিকেট বোর্ড কিন্তু বিশেষ ব্যক্তিকে হকিতে নমিনেশন দেওয়ার জন্য ১ কোটি টাকা দিয়ে আসছেন। এই তথ্যও প্রত্যেককে জানতে হবে। যে মানুষকে নিয়ে আসা হয়েছে, তার বিরুদ্ধে ১৪ তারিখে পাকিস্তানে পতাকা উত্তোলনের ঘটনা রয়েছে।
 
 

আরও সংবাদ

বাংলার সময়
বাণিজ্য সময়
বিনোদনের সময়
খেলার সময়
আন্তর্জাতিক সময়
মহানগর সময়
অন্যান্য সময়
তথ্য প্রযুক্তির সময়
রাশিফল
লাইফস্টাইল
ভ্রমণ
প্রবাসে সময়
সাক্ষাৎকার
মুক্তকথা
বাণিজ্য মেলা
রসুই ঘর
বিশ্বকাপ গ্যালারি
বইমেলা
উত্তাল মার্চ
সিটি নির্বাচন
শেয়ার বাজার
জাতীয় বাজেট
বিপিএল
শিক্ষা সময়
ভোটের হাওয়া
স্বাস্থ্য
ধর্ম
চাকরি
পশ্চিমবঙ্গ
ফুটবল বিশ্বকাপ
ভাইরাল
সংবাদ প্রতিনিধি
বিশ্বকাপ সংবাদ
Latest News
আপনিও লিখুন
ছবি ভিডিও টিভি
মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন
GoTop