ksrm

বাণিজ্য সময়পেঁয়াজ সিন্ডিকেটে ভোক্তার ক্ষতি ৩২শ’ কোটি টাকা

সময় সংবাদ

fb tw
somoy
জুলাই থেকে অক্টোবর এই চারমাসে পেঁয়াজের বাজারে ভোক্তাদের ক্ষতি হয়েছে প্রায় ৩২শ’ কোটি টাকা। শুধু জুলাই মাসেই মূল সিন্ডিকেট হাতিয়ে নিয়েছে ৩৯৭ কোটি টাকা। ১২২ দিনে পেঁয়াজের মূল্য ওঠা-নামা করেছে ২৪ বার। এমন তথ্য উঠে এসেছে কনসাস কনজুমার্স সোসাইটির (সিসিএস) প্রতিবেদনে। প্রেসক্লাবে সংবাদ সম্মেলনে সংগঠনটি বলছে, পেঁয়াজের বাজার নিয়ে নৈরাজ্য হয়েছে।
হট্টগোল মারামারি করে টিসিবির পেঁয়াজ কিনছে লাইনে দাঁড়িয়ে থাকা ক্রেতারা। তীব্র রোদ উপেক্ষা করে সকাল থেকে লাইনে দাঁড়িয়েছেন খুচরা বাজারে কেজিপ্রতি প্রায় দেড়শো টাকার পরিবর্তে টিসিবির দেয়া ৪৫ টাকা দরে পেঁয়াজ কিনতে। তবে, ২ কেজি করে জন প্রতি পেঁয়াজ পেলেও এখন পাচ্ছেন ১ কেজি করে। পেঁয়াজের ঝাঁজে নাভিশ্বাস ওঠা ক্রেতারা জানান ক্ষুব্ধ প্রতিক্রিয়া।
টিসিবি থেকে এক ট্রাকে পেঁয়াজ বরাদ্দ দেয়া হয়েছে ১ হাজার কেজি। ক্রেতাদের চাপ সামাল দিতে তাই বাধ্য হয়ে এক কেজি করে দিচ্ছেন ডিলাররা।
লিখিত বক্তব্যে পলাশ মাহমুদ বলেন, সম্প্রতি খুচরা বাচারে পেঁয়াজের মূল্য কেজি প্রতি ১২০ থেকে ১৫০ টাকা ছাড়িয়েছে। ক্ষেত্র বিশেষে ১৫০ থেকে ৬০ টাকাও বিক্রি হচ্ছে। যা দেশের ইতিহাসে পেঁয়াজের সর্বোচ্চ দাম। কোথাও কোথাও পেঁয়াজ এখন ‘হালি’ দরে বিক্রি হচ্ছে। নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্যটি এখন মানুষের ক্রয় ক্ষমতার বাইরে চলে যাচেছ। মধ্যবিত্ত ও দরিদ্র মানুষের পক্ষে এখন পেঁয়াজ দুর্লভ পণ্য হয়ে দাঁড়িয়েছে।
গত দুই সপ্তাহে অকল্পনীয়হারে পেঁয়াজের মূল্য বাড়ানো হয়েছে উল্লেখ করে তিনি বলেন, মূলত চার মাস আগে পেঁয়াজের মূল্য বৃদ্ধি করা হয়েছে। গত ঈদুল আজহার এক মাস আগে, জুলাই মাসের ২ তারিখ থেকে হঠাৎ করেই পেঁয়াজের দাম বাড়ানো হয়। তখন সরবরাহ ও আমদানী স্বাভাবিক থাকলেও এক দিনেই কেজি প্রতি ৩০ টাকা থেকে বাড়িয়ে ৪৫ টাকা করা হয়। সেই থেকে ৩১ অক্টোবর পর্যন্ত চার মাসে (১২২ দিন) মোট ২৪ বার পেঁয়াজের মূল্য ওঠা-নামা করেছে।
পেঁয়াজের মূল্যের এই ওঠা-নামার পেছনে একটি শক্তিশালী সিন্ডিকেট কাজ করছে মন্তব্য করে পলাশ মাহমুদ বলেন, গত চার মাসে বাণিজ্যমন্ত্রী অন্তত পাঁচবার স্বীকার করেছেন, পেঁয়াজের মূল্য নিয়ে সিন্ডিকেট কাজ করছে। চট্টগ্রামে সিন্ডিকেটের ১৩ সদস্যকে চিহ্নিত করা হলেও ব্যবস্থা নেয়া হয়নি। যা ভোক্তাকে হতাশ, ব্যাথিত ও ক্ষুব্ধ করে।
ব্যবসায়ীদের পক্ষ থেকে সরবরাহ সঙ্কট ও আমদানী খরচের যে কারণ দেখানো হচ্ছে সে বিষয়ে সিসিএস এর পক্ষ থেকে বলা হয়, এ দ’ুটি যুক্তিই শুধুমাত্র অজুহাত ও ভোক্তার সঙ্গে প্রতারণার কৌশল। কারণ, ঈদুল আজহার এক মাস আগে কোথাও সরবরাহ ঘাটতি ছিল না এবং আমদানী খরচ বেশি ছিল না। শুধুমাত্র ঈদকে সামনে রেখে সিন্ডিকেট করে পেঁয়াজের মূল্য বাড়ানো হয়। পরবর্তীতে সিন্ডিকেটের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা না নেয়ায় তারা অব্যহতভাবে দাম বাড়াতে থাকে। যা এখন ভোক্তার নাভিশ্বাস পর্যায়ে পৌঁছেছে।
তিনি বলেন, সেপ্টেম্বরের শেষ সপ্তাহে ভারত পেঁয়াজের দাম বৃদ্ধি ও পরে রপ্তানি বন্ধ ঘোষণা করার সঙ্গে সঙ্গে দেশের বাজারে পেঁয়াজের অস্বাভাবিক দাম বাড়ানো হয়। এক দিনেই বর্ধিত দামের পেঁয়াজ বাংলাদেশে আসা সম্ভব নয়। এর পরপরই ভারত রপ্তানি বন্ধ করে দেয়। ভারতের পেঁয়াজ রপ্তানি বন্ধ এক মাস অতিবাহিত হয়েছে। কিন্তু দেশের বাজারে সর্বত্রই এখনো ভারতীয় পেঁয়াজ পাওয়া যাচ্ছে। এতেই প্রমাণিত হয় পেঁয়াজের সরবরাহ যথেষ্ট ছিল এবং আছে।
অন্যদিকে দেশি পেঁয়াজের দাম বাড়ার কোনো যৌক্তিক কারণ নেই উল্লেখ করে সিসিএস এর পক্ষ থেকে বলা হয়, দেশে বছরে ২৪ লাখ মেট্রিক টন পেঁয়াজের চাহিদা রয়েছে। এর দুই তৃতীয়াংশ বা ১৬ লাখ মেট্রিক টনের চাহিদা দেশি পেঁয়াজে পূরণ হয়। কোনো দেশ রপ্তানি বন্ধ করলে দেশি পেঁয়াজ সরবরাহ বন্ধ হওয়ার বা কমে যাওয়ার কোনো কারণ নেই। আমাদানি খরচ বৃদ্ধির অজুহাতও প্রযোজ্য নয়। ফলে সরবরাহ কম ও আমদানী খরচ বৃদ্ধির অজুহাতে ভোক্তার সঙ্গে প্রতারণা করে শত শত কোটি হাতিয়ে নেয়া হচ্ছে বলে মন্তব্য করেন পলাশ মাহমুদ।
তিনি বলেন, গত ২ জুলাই থেকে ৩১ অক্টোবর পর্যন্ত সিেিন্ডকেট করে পেঁয়াজের দাম বাড়ানোয় গত চার মাসে ভোক্তার ক্ষতি হয়েছে তিন হাজার একশত উনাশি কোটি ছত্রিশ লাখ পঞ্চাশ হাজার টাকা। এর মধ্যে জুলাই মাসে তিনশত সাতানব্বই কোটি সাতষট্টি লাখ, আগস্ট মাসে চারশত একানব্বই কোটি তিতাল্লিশ লাখ পঞ্চাশ হাজার, সেপ্টেম্বর মাসে আটশত পঁচিশ কোটি ছাব্বিশ লাখ পঞ্চাশ হাজার এবং অক্টোবর মাসে চৌদ্দশত ছৌষট্টি কোটি নিরানব্বই লাখ পঞ্চাশ হাজার টাকা।
তিনি বলেন, চার মাসে পেঁয়াজ সিন্ডিকেট যে অর্থ হাতিয়ে নিয়েছে তা দিয়ে দ্বিতীয় বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট উৎক্ষেপণ করা সম্ভব। চার মাসে মূল্য বেড়েছে ৪০০ গুণ। আর গত এক মাসের হিসেব করলে দেখা যাচ্ছে, প্রতি দিন প্রায় ৫০ কোটি টাকা হাতিয় নেয়া হচ্ছে

আরও সংবাদ

বাংলার সময়
বাণিজ্য সময়
বিনোদনের সময়
খেলার সময়
আন্তর্জাতিক সময়
মহানগর সময়
অন্যান্য সময়
তথ্য প্রযুক্তির সময়
রাশিফল
লাইফস্টাইল
ভ্রমণ
প্রবাসে সময়
সাক্ষাৎকার
মুক্তকথা
বাণিজ্য মেলা
রসুই ঘর
বিশ্বকাপ গ্যালারি
বইমেলা
উত্তাল মার্চ
সিটি নির্বাচন
শেয়ার বাজার
জাতীয় বাজেট
বিপিএল
শিক্ষা সময়
ভোটের হাওয়া
স্বাস্থ্য
ধর্ম
চাকরি
পশ্চিমবঙ্গ
ফুটবল বিশ্বকাপ
ভাইরাল
সংবাদ প্রতিনিধি
বিশ্বকাপ সংবাদ
Latest News
আপনিও লিখুন
ছবি ভিডিও টিভি
মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন
GoTop