ksrm

স্বাস্থ্য বাংলাদেশে প্রোজেরিয়া আক্রান্ত শিশুদের সনাক্ত করতে ক্যাম্পেইন

সময় সংবাদ

fb tw
somoy
দ্রুত বার্ধক্যজনিত রোগ বা প্রোজেরিয়া আক্রান্ত শিশুদের সনাক্ত করতে ‘ফাইন্ড দ্য চিলড্রেন-১০ ইন বাংলাদেশ উইথ প্রোজেরিয়া’ নামে ক্যাম্পেইন চালু করেছে দ্য প্রোজেরিয়া রিসার্চ ফাউন্ডেশন (পিআরএফ)। এটি বিশ্বের একমাত্র প্রতিষ্ঠান যারা প্রোজেরিয়া আক্রান্ত শিশুদের চিকিৎসা ও নিরাময়ের জন্য কাজ করে। শিশুদের দ্রুত বার্ধক্যজনিত জটিল এ রোগের বিষয়ে জনসাধারণসহ স্বাস্থ্য সেবাদানকারীদের সচেতন করার জন্য এ ক্যাম্পেইনের আয়োজন।
বাংলাদেশে প্রোজেরিয়া অক্রান্ত শিশুদের সনাক্ত করতে সকলের সহায়তা প্রত্যাশা করছে প্রতিষ্ঠানটি। যাতে আক্রান্ত শিশুরা চিকিৎসা ও স্বাস্থ্যসেবা নির্দেশিকার মাধ্যমে আরও দীর্ঘদিন ভালোভাবে জীবনযাপন করতে পারে। 
হাচিনসন-গিলফোর্ড প্রোজেরিয়া সিন্ড্রোম (এইচজিপিএস) নামে পরিচিত একটি জটিল রোগ হলো প্রোজেরিয়া। এটি বিরল জেনেটিক রোগের মধ্যে একটি গ্রুপ। যার অন্যতম বৈশিষ্ট্য হলো- বয়সের তুলনায় আক্রান্ত শিশুদের অধিক বয়স্ক মনে হয়। এ রোগের ফলে শিশুরা গড়ে ১৪ বছর বয়সে হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে মৃত্যুবরণ করে। এছাড়াও প্রোজেরিয়া আক্রান্ত রোগীদের মধ্যে শরীরের বিভিন্ন জোড়া শক্ত হওয়া, স্বাভাবিক বৃদ্ধি না হওয়া, ওজন কমে যাওয়া এবং চুল ও ত্বক বয়স্ক লোকদের মতো হয়ে যাওয়া লক্ষণগুলো দেখতে পাওয়া যায়। ফলে আক্রান্ত শিশুরা জাতিগত ভাবে ভিন্ন থাকলেও সবাইকে প্রায় একই রকম দেখায়। 
বর্তমানে বিশ্বের প্রায় সাড়ে তিনশ থেকে চারশ শিশু জটিল এ রোগে আক্রান্ত বলে বিশেষজ্ঞরা ধারণা করছে। কিন্তু ২০১৯ সালের অক্টোবর মাস পর্যন্ত মাত্র ১৬১ জন আক্রান্ত শিশুর সন্ধান পেয়েছে দ্য প্রোজেরিয়া রিসার্চ ফাউন্ডেশন। ফলে প্রায় ২০০ শিশু এর আওতার বাইরে রয়েছে। পরিসংখ্যাতগত দিক বিবেচনা করে বাংলাদেশে প্রায় ১০ জন প্রোজেরিয়া আক্রান্ত রোগী রয়েছে। যাদের এখনও পর্যন্ত সনাক্ত করা যায়নি। গত তিন বছরে বাংলাদেশে তিন জন শিশুকে সনাক্ত করা হয়েছে। বাংলাদেশে বসবাসরত লোকেরা প্রোজেরিয়া আক্রান্ত শিশুদের সনাক্ত করতে সহায়তা করলে খুব সহজে পিআরএফ এসকল শিশুদের প্রয়োজনীয় চিকিৎসা সেবা ও সাহায্য দিতে পারবে। 
পিআরএফ এর মেডিকেল ডিরেক্টর ডা. লেসলি বি. গর্ডন বলেন, বাংলাদেশে আমরা যখন প্রোজেরিয়া রোগীর সন্ধান পাবো তখনই তারা পিআরএফ এর আন্তর্জাতিক প্রোজেরিয়ারেজিস্ট্রির অংশ হয়ে যাবে। চিকিৎসা সুপারিশ পাওয়ার পাশাপাশি ক্লিনিক্যাল চিকিৎসা পরীক্ষায় যোগদানের জন্য আমন্ত্রিত হবেন। বাংলাদেশে প্রোজেরিয়া আক্রান্ত প্রতিটি শিশুকে এই সুযোগ দেয়া হলো আমাদের অন্যতম লক্ষ্য। প্রয়োজনীয় সকল ধরনের সাহায্য সহযোগিতা করার জন্য আমাদের প্রথম কাজ হলো এ সকল রোগী ও তাদের পরিবারকে সনাক্ত করা। প্রোজেরিয়া আক্রান্ত সমস্ত শিশুদের চিকিৎসা ও নিরাময়ের জন্য আমাদের প্রচেষ্টা অব্যহত থাকবে। অতএব অনুগ্রহ করে বাংলাদেশে প্রোজেরিয়া আক্রান্ত রোগীদের সনাক্ত করতে আমাদের সহযোগিতা করুন।

আরও সংবাদ

বাংলার সময়
বাণিজ্য সময়
বিনোদনের সময়
খেলার সময়
আন্তর্জাতিক সময়
মহানগর সময়
অন্যান্য সময়
তথ্য প্রযুক্তির সময়
রাশিফল
লাইফস্টাইল
ভ্রমণ
প্রবাসে সময়
সাক্ষাৎকার
মুক্তকথা
বাণিজ্য মেলা
রসুই ঘর
বিশ্বকাপ গ্যালারি
বইমেলা
উত্তাল মার্চ
সিটি নির্বাচন
শেয়ার বাজার
জাতীয় বাজেট
বিপিএল
শিক্ষা সময়
ভোটের হাওয়া
স্বাস্থ্য
ধর্ম
চাকরি
পশ্চিমবঙ্গ
ফুটবল বিশ্বকাপ
ভাইরাল
সংবাদ প্রতিনিধি
বিশ্বকাপ সংবাদ
Latest News
আপনিও লিখুন
ছবি ভিডিও টিভি
মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন
GoTop