মহানগর সময়রাজধানীর বিভিন্ন কমিউনিটি সেন্টার র‌্যাব-পুলিশের নিজ কার্যালয়

রাশেদ বাপ্পী

fb tw
রাজধানীর দুই সিটি কর্পোরেশনের ৪৯টি কমিউনিটি সেন্টারের ১৫টিকেই কার্যালয় হিসেবে ব্যবহার করছে র‍্যাব এবং পুলিশ। বাকিগুলোর বেশিরভাগই জরাজীর্ণ হওয়ায় গুরুত্বপূর্ণ এ নাগরিক সেবা থেকে বঞ্চিত রাজধানীবাসী।
ঝুঁকিপূর্ণ কমিউনিটি সেন্টারগুলোর সংস্কার ও পুনর্নির্মাণের কথা জানালেও নতুন জায়গা না পাওয়া পর্যন্ত কমিউনিটি সেন্টার থেকে র‍্যাব-পুলিশ সরানো সম্ভব নয় বলে জানান মেয়র।
রাজধানীর বাসাবো কমিউনিটি সেন্টার। রঙিন কাপড়ে সুসজ্জিত গেইট পেরিয়ে ভেতরে ঢুকতেই চোখে পড়লো পাড়ার ছেলেদের মিনি ক্রিকেট ম্যাচ। দ্বিতীয় তলার চিত্র দেখে কোনো আশ্রয় শিবির মনে হলেও একটি নাগরিক সেবাদান প্রতিষ্ঠানকে বাসস্থানে পরিণত করেছে পুলিশ।
ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশনের ৩৬টি ও উত্তরের ১৩টি কমিউনিটি সেন্টারের ৫টি র‍্যাব কার্যালয়, ৯টি থানা, ও ১টি পুলিশ ফাঁড়ি হিসেবে ব্যবহার হচ্ছে। ২টিকে আঞ্চলিক কার্যালয় হিসেবে ব্যবহার করছে সিটি কর্পোরেশন নিজেই। বাকী ২২টির বেশিরভাগই জরাজীর্ণ। অবহেলা আর অযত্নে ধ্বংসের দ্বারপ্রান্তে।
রাজধানীতে বিকল্প জায়গার ব্যবস্থা করা কষ্টসাধ্য হওয়ায় সংশ্লিষ্ট এলাকার আইন-শৃঙ্খলা রক্ষায় কমিউনিটি সেন্টার থেকে র‍্যাব-পুলিশ সরানো সম্ভব নয় বলে জানালেন ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশনের মেয়র সাঈদ খোকন।
তবে নগরপরিকল্পনাবিদ স্থপতি ইকবাল হাবিব মনে করেন, যে কারণে এই কমিউনিটি সেন্টারগুলো তৈরি হয়েছে সেকাজেই এগুলো ব্যবহার হওয়া উচিত। জনসংখ্যার ঘনত্বের বিচারে রাজধানীতে আরও কমিউনিটি সেন্টার তৈরিরও আহ্বান জানান এ নগরবিদ।

আরও সংবাদ

বাংলার সময়
বাণিজ্য সময়
বিনোদনের সময়
খেলার সময়
আন্তর্জাতিক সময়
মহানগর সময়
অন্যান্য সময়
তথ্য প্রযুক্তির সময়
রাশিফল
লাইফস্টাইল
ভ্রমণ
প্রবাসে সময়
সাক্ষাৎকার
মুক্তকথা
বাণিজ্য মেলা
রসুই ঘর
বিশ্বকাপ গ্যালারি
বইমেলা
উত্তাল মার্চ
সিটি নির্বাচন
শেয়ার বাজার
জাতীয় বাজেট
বিপিএল
শিক্ষা সময়
ভোটের হাওয়া
স্বাস্থ্য
ধর্ম
চাকরি
পশ্চিমবঙ্গ
ফুটবল বিশ্বকাপ
সংবাদ প্রতিনিধি
বিশ্বকাপ সংবাদ
মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন
GoTop