ksrm

খেলার সময়অনূর্ধ্ব-১৫ নারী সাফ: শুরুই হয়নি স্টেডিয়ামের সংস্কার

খেলার সময় ডেস্ক

fb tw
১৫ই ডিসেম্বর থেকে শুরু হচ্ছে অনূর্ধ্ব-১৫ নারী সাফ চ্যাম্পিয়নশিপ। অথচ এখনো শুরুই হয়নি কমলাপুর শহীদ সিপাহী মোস্তফা কামাল স্টেডিয়ামের সংস্কারকাজ। দিন বিশেক আগে পরিদর্শন করে শীঘ্রই কাজ শুরুর আশ্বাস দিলেও, আটকে আছে সংস্কারকাজের বাজেটের টাকা। ফলে নির্ধারিত সময়ের মধ্যে স্টেডিয়াম তৈরির বিষয়ে আশঙ্কার কথা জানিয়েছেন সাফ সেক্রেটারি। তবে, নির্ধারিত সময়ের মধ্যেই মাঠ সম্পূর্ণ প্রস্তুত করা হবে বলে জানিয়েছেন যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী বীরেন শিকদার।
'যদি আমরা সরকারি প্রক্রিয়া অনুসরণ করতে যাই তাহলে আদৌ সম্ভব না। আমাদের পিপিআর অনুযায়ী, অন্য পন্থাও আছে। সেটা হচ্ছে এরকম জরুরি কাজের জন্য আমরা লিমিটেড টেন্ডার মেথডে যেতে পারি।' যুব ও ক্রীড়া মন্ত্রণালয়ের সচিব ওমর ফারুকের কথাগুলো দিন বিশেক আগের। সময় খুব স্বল্প বলেই আনুষ্ঠানিকতা বাদ দিয়ে বিকল্প ব্যবস্থার মাধ্যমে দ্রুতই সংস্কার কাজ শুরুর আশ্বাস দিয়েছিলেন তিনি। অথচ প্রায় তিন সপ্তাহ পেরিয়ে গেলেও, এখনো কাজই শুরু করতে পারেনি জাতীয় ক্রীড়া পরিষদ।
অনূর্ধ্ব-১৫ নারী সাফ চ্যাম্পিয়নশিপের বাকি সপ্তাহ দুয়েক। ভেন্যু কমলাপুরের শহীদ সিপাহী মোস্তফা কামাল স্টেডিয়াম। যেখানে আন্তর্জাতিক টুর্নামেন্ট আয়োজনের ব্যবস্থাপনা নেই বললেই চলে। নেই ড্রেসিং রুম, মিডিয়া রুম এমনকি পর্যাপ্ত ফ্লাডলাইটের ব্যবস্থাপনাও। টুর্নামেন্ট শুরুর আগে এসব সংস্কারের প্রতিশ্রুতি দিলেও, এনএসসি আর ক্রীড়া মন্ত্রণালয়ের অবহেলায় এখনো শুরু হয়নি কাজ। আর এতেই কপালে চিন্তার ভাঁজ সংশ্লিষ্টদের।
সাফের সেক্রেটারি আনোয়ারুল হক হেলাল বলেন, 'আমরা কিছুটা চিন্তায়ই আছি। কারণ, ড্রেসিংরুম কমপক্ষে চারটা না হলে খেলানো অনেক কঠিন হবে। এমনিতেই আমরা ফ্লাডলাইট পাচ্ছি না। খেলা হচ্ছে ডিসেম্বরে, শীতের দিনে লাইট অনেক কমে যায়। আমাদের দেশে সব কাজই তো শেষ মুহূর্তে হয়, এটাও আশা করি সেভাবে হবে।'
তবে এসব আশঙ্কাকে যেন থোড়াই কেয়ার করছেন আয়োজকরা। দিনভর অপেক্ষা করেও বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশনের উচ্চপদস্থ কোন কর্মকর্তারই দেখা মিলছেনা সংগঠনটির কার্যালয়ে।
তবে নির্ধারিত সময়ে ভেন্যু প্রস্তুতের আশ্বাস দিলেন যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী বীরেন শিকদার।
তিনি বলেন, 'স্টেডিয়ামের সংস্কারের জন্য আমরা এরইমধ্যে পদক্ষেপ গ্রহণ করেছি। কি কি সংস্কার করতে হবে সেটা আমাদের চিহ্নিত করা হয়েছে। আশা করছি, খুব শীগগিরই কমলাপুর স্টেডিয়ামের যেসব ক্রুটি বিচ্যুতি আছে সেগুলো ঠিক করে দেবো।'
এমনিতেই আন্তর্জাতিক পরিমণ্ডলে বেশ পিছিয়ে দেশের ফুটবল। তার উপর দায়সারা টুর্নামেন্ট আয়োজনে দেশের ভাবমূর্তি নষ্ট হওয়ার আশঙ্কাই বেশি।
/এসএম

আরও সংবাদ

বাংলার সময়
বাণিজ্য সময়
বিনোদনের সময়
খেলার সময়
আন্তর্জাতিক সময়
মহানগর সময়
অন্যান্য সময়
তথ্য প্রযুক্তির সময়
রাশিফল
লাইফস্টাইল
ভ্রমণ
প্রবাসে সময়
সাক্ষাৎকার
মুক্তকথা
বাণিজ্য মেলা
রসুই ঘর
বিশ্বকাপ গ্যালারি
বইমেলা
উত্তাল মার্চ
সিটি নির্বাচন
শেয়ার বাজার
জাতীয় বাজেট
বিপিএল
শিক্ষা সময়
ভোটের হাওয়া
স্বাস্থ্য
ধর্ম
চাকরি
পশ্চিমবঙ্গ
ফুটবল বিশ্বকাপ
ভাইরাল
সংবাদ প্রতিনিধি
বিশ্বকাপ সংবাদ
Latest News
আপনিও লিখুন
ছবি ভিডিও টিভি
মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন
GoTop